যুবককে কু;’;’মা;’দক ব্যবসায়ীদের লুঙ্গিড্যান্স, ফেসবুকে ভাইরাল

কুমিল্লার চৌদ্দগ্রামে দেলোয়ার হোসেন নামে এক যুবককে কু;’পিয়ে রামদা হাতে নিয়ে লুঙ্গিড্যান্স করে উল্লাস করেছে একদল মা;’দক ব্যবসায়ী। মা;’দক ব্যবসায় বাধা দেওয়ায় ভারত সীমান্তবর্তী উপজেলার কোমারডোগা গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।

গত ১৭ মে ওই যুবককে কু;’পিয়ে আ;’হত করা হলেও মঙ্গলবার রামদা হাতে মা;’দক ব্যবসায়ীদের লুঙ্গিড্যান্স সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ফেসবুকে ভাইরাল হয়।

এ ঘটনায় আহত দেলোয়ার হোসেনের স্ত্রী আয়েশা আক্তার ৭ জনের বি;’রুদ্ধে থা;’নায় মা;’মলা করেছেন। ভিডিও দেখে মঙ্গলবার দুপুরে পু;’লি’শ ঘটনায় জড়িত মেহেদি হাসান নামে এক মা;’দক ব্যবসায়ীকে গ্রে;’ফ;’তার করেছে।

পু;’লি’শ ও স্থানীয়রা জানান, উপজেলার কোমারডোগা গ্রামে একদল মা;’দক ব্যবসায়ীর বি;’রুদ্ধে সর্বদাই সোচ্চার ছিলেন স্থানীয় যুবক দেলোয়ার হোসেন। ১৭ মে মা;’দক কারবারিদের ব্যবসায় বাধা দেয় দেলোয়ার। এতে পরিকল্পিতভাবে হ;’ত্যা;’র উদ্দেশ্যে একই এলাকার শাহজালাল, শাহাদাৎ, বাবলু, জসিম উদ্দিন, ফয়সাল, মেহেদি হাসান ও মবিন তাকে কু;’পিয়ে গু;’রতর জ;’খম করে। স্বজনরা তাকে উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করে।

এ সময় মা;’দক ব্যবসায়ীরা পার্শ্ববর্তী রাজেশপুর এলাকায় গিয়ে রামদা হাতে নিয়ে লুঙ্গিড্যান্স দিয়ে উল্লাস করে। ভিডিওতে হিন্দি গানের (লুঙ্গিড্যান্স) তালে তালে তাদের উল্লাস করতে দেখা যায়। রামদা হাতে চরম উল্লাসে মেতে ওঠেন মা;’দক ব্যবসায়ী মেহেদি হাসান বাবলু। মঙ্গলবার এ ভিডিও ফেসবুকে ভাইরাল হলে বিষয়টি পু;’লি’শ ও গণমাধ্যম কর্মীসহ সচেতনমহলের দৃষ্টিগোচর হয়।

চৌদ্দগ্রাম থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) শুভ রঞ্জন চাকমা বলেন, মঙ্গলবার আমরা মেহেদি হাসান নামে এক আ;’সামিকে গ্রে;’ফ’তার করেছি। বাকি আ;’সামিদের গ্রে;’ফ’তারে অভিযান চলছে। অপরাধী কাউকে ছাড় দেওয়া হবে না।