ছোট নৌকাটি যাত্রী নিয়ে সাগরের মাঝে যেতে না যেতেই ভয়ানক ঝড় শুরু নাবিকের দক্ষতায় কিভাবে নৌকাটি বেঁচে গেল দেখুন (ভিডিও সহ)

সমুদ্র বা বিশ্ব মহাসাগর হল লবণাক্ত জলের পরস্পর সংযুক্ত জলরাশি, যা পৃথিবীর উপরিতলের ৭০ শতাংশেরও বেশি অংশ আবৃত করে রেখেছে। সমুদ্র পৃথিবীর জলবায়ুকে সহনীয় করে রাখে এবং জলচক্র, কার্বন চক্র ও নাইট্রোজেন চক্রে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা গ্রহণ করে। প্রাচীন কাল থেকেই মানুষ সমুদ্র পরিভ্রমণ করছে ও সমুদ্রাভিযান চালিয়ে আসছে। তবে সমুদ্র-সংক্রান্ত বিজ্ঞানসম্মত চর্চা বা সমুদ্রবিজ্ঞানের সূচনা ঘটে মোটামুটিভাবে ১৭৬৮ থেকে ১৭৭৯ সালের মধ্যে ক্যাপ্টেন জেমস কুকের প্রশান্ত মহাসাগর অভিযানের সময়।

সমুদ্রের জলে সর্বাধিক পরিমাণে যে ঘনবস্তু দ্রবীভূত অবস্থায় রয়েছে, তা হল সোডিয়াম ক্লোরাইড। এছাড়া অন্যান্য অনেক মৌলের সঙ্গে রয়েছে ম্যাগনেসিয়াম, ক্যালসিয়াম ও পটাসিয়ামের লবন। কয়েকটি মৌল রয়েছে অতিসূক্ষ্ম কেন্দ্রীভূত অবস্থায়। সমুদ্রজলের লবণাক্ততা সর্বত্র সমান নয়। পৃষ্ঠতল ও বড়ো বড়ো নদীর মোহনার কাছে জলের লবণাক্ততা কম; অন্যদিকে সমুদ্রের গভীরতর

অংশে লবণাক্ততা বেশি। যদিও বিভিন্ন মহাসাগরগুলির মধ্যে দ্রবীভূত লবনের আপেক্ষিক অনুপাতের পার্থক্য কমই হয়। সমুদ্রের পৃষ্ঠতলের উপর দিয়ে প্রবাহিত বায়ু তরঙ্গ সৃষ্টি করে। সেই তরঙ্গ সমুদ্রের অগভীর স্থানে প্রবেশ করে ভেঙে পড়ে। সমুদ্রের উপরিতলের সঙ্গে বায়ুর ঘর্ষণের ফলে সমুদ্রস্রোতেরও সৃষ্টি হয়। এই সমুদ্রস্রোতগুলি ধীরগতিতে অথচ নিয়মিতভাবে মহাসাগরগুলির মধ্যে

জল প্রবাহিত করে। মহাদেশগুলির গড়ন ও পৃথিবীর আবর্তন (কোরিওলিস প্রভাব) ইত্যাদি কয়েকটি কারণ এই প্রবাহের অভিমুখ নিয়ন্ত্রণ করে। বিশ্ব পরিবহণ বেষ্টণী নামে পরিচিত গভীর-সমুদ্রস্রোতগুলি মেরু অঞ্চল থেকে ঠান্ডা জল প্রত্যেকটি মহাসাগরে বহন করে আনে।
বিভিন্ন কারণে সমুদ্রের মধ্যে বিভিন্ন ধরনের দুর্ঘটনা ঘটে এবং অনেকে প্রাণে ফিরে বাঁচতে পারে না। বিশেষ করে ছোট ছোট নৌকাগুলোকে যখন মাছ ধরতে যায় তখন এই ধরনের নৌকা বেশি ক্ষতিগ্রস্ত হয়।

নৌকা থাকা মানুষগুলো অনেক প্রাণহানি থাকে কারণ এ ধরনের নৌকাগুলো ছোট থাকে। তাই সমুদ্রের ঢেউয়ে ছোট নৌকাগুলো সামলাতে পারে না। ফলে নৌকাগুলো উল্টে যায় আর মানুষ গুলো মারা যায়।
প্রতিনিয়ত সোশ্যাল মিডিয়ায় একের পর এক ভিডিও ভাইরাল হয়ে যাচ্ছে আর মানুষ তা ক্যামেরাবন্দি করে ভয়ঙ্কর কিছু মুহূর্তের সাক্ষী হচ্ছে এরকম একটি ঘটনা ভাইরাল হয়েছে যেখানে একটি ছোট নৌকা যাত্রী নিয়ে সাগরের দিকে রওনা করে দূর থেকে দেখে মনোরম দৃশ্য মনে হলেও কিছুক্ষণ পরেই ছোট নৌকাটি ঝড়ের কবলে পড়ে যায় নৌকা ডুবে যাবে ডুবে যাবে এমন অবস্থায় নিঃশ্বাস বন্ধ হওয়ার অবস্থা নাবিক দক্ষতার সাথে তার নৌকাটি পরিচালনা করতে গেলেও প্রতিনিয়ত ব্যাঘাত ঘটছিল যা দেখে সাগরপারের মানুষজনের রুদ্ধশ্বাস অবস্থা যদিও নাবিক তার যথেষ্ট দক্ষতার পরিচয় দেখিয়েছে।