আদার রসে নতুন চুল গজায়-দূর করে খুশকি

রান্নায় স্বাদ বাড়ানোর অন্যতম মসলা হচ্ছে আদা। পৃথিবীর সর্বত্রই এটি ব্যবহার হয়। শুধু খাবারের স্বাদ বাড়াতে নয়, আদা ঠাণ্ডা লাগা এবং কাশির সমস্যা থেকে মুক্তি পাওয়ার একটি ঘরোয়া প্রতিকারও। তবে জানেন কি, আদার প্যাক নতুন চুল গজাতে, চুলের স্বাস্থ্য আর খুস্কির সমস্যাতেও একই রকমের কার্যকরী!

আদার রস মা’থার ত্বকের র’ক্ত সঞ্চালনে সাহায্য করে। এর ফলে দ্রুত নতুন চুল গজায়। তাছাড়া আদার রসে আছে অ্যান্টিব্যাকটেরিয়াল উপাদান, যা মা’থার ত্বকের খুশকি দূর করতে সাহায্য করে। চলুন তবে জেনে নেয়া যাক নতুন চুল গজাতে কী’ভাবে ব্যবহার করবেন আদার প্যাক-

যেভাবে তৈরি করবেন আদার মাস্ক : প্রথমে বড় এক টুকরো আদা খোসা ছাড়িয়ে ব্লেন্ডারে ভালো করে ব্লেন্ড করে নিন। এবার একটি সুতি কাপড়ে আদার মিশ্রণ দিয়ে ভালো করে চিপে এর রস বের করে নিন। এর মধ্যে এক টেবিল চামচ অ্যাভোকাডোর তেল, আধাকাপ নারকেলের দুধ ও ১০ ফোঁটা লেবুর রস দিয়ে ভালো’ভাবে মিশিয়ে নিন।

এবার বড় দাঁতের চিরুনি দিয়ে চুল ভালো করে আঁচড়ে জট ছাড়িয়ে নিন। তারপর এই প্যাক চুল ও মা’থার তালুতে লাগিয়ে ৫ থেকে ১০ মিনিট ম্যাসাজ করুন। এভাবে ৪৫ মিনিট প্যাক লাগিয়ে অ’পেক্ষা করুন। এরপর মাইল্ড শ্যাম্পু দিয়ে চুল ধুয়ে ফেলুন। চুল ভালো করে মুছে বাতাসে শুকিয়ে নিন। টানা কয়েকদিন এই প্যাক ব্যবহারে অনেক দ্রুত নতুন চুল গজাবে ও খুশকি দূর হবে।

# অ্যাভোকাডোর তেলে ভিটামিন বি, অ্যামিনো এসিড ও প্রয়োজনীয় ফ্যাটি এসিড রয়েছে, যা চুল নরম ও মৃণ করতে সাহায্য করে।

# নারকেলের লাউরিক এসিড চুলের রুক্ষতা দূর করে, মা’থার তালু পরিষ্কার রাখে এবং চুলের আগা ফাটা দূর করে।

# লেবুর রসের সাইট্রিক এসিড ও ভিটামিন সি মা’থার খুশকি দূর করে এবং সংক্রমণের জীবাণু ধ্বংস করে।