স্বাস্থ্যখাতের প্রকল্প পরিচালকরা কেনাকাটা শিখতে প্রশিক্ষণ নেবে

স্বাস্থ্যখাতের কেনাকাটায় অনিয়ম রোধে স্বচ্ছতা ও জবাবদিহিতা নিশ্চিতে কেনাকাটার সঙ্গে জড়িত প্রকল্প পরিচালকদের (পিডি) ক্রাশ প্রোগ্রাম নিয়ে প্রশিক্ষণের ব্যবস্থা করা হবে।

শুক্রবার (৪ জুন) দুপুরে ভার্চুয়াল মাধ্যমে ২০২১-২০২২ অর্থবছরের বাজেটোত্তর সংবাদ সম্মেলনে অর্থসচিব আবদুর রউফ তালুকদার এ কথা বলেন।

তিনি বলেন, ‘গত অর্থবছরের তুলনায় নতুন বাজেটে বরাদ্দ বেড়েছে ১৩ দশমিক ৩ শতাংশের বেশি। এক বছরে আমরা যে পরিমাণ ভ্যাকসিন প্রয়োগ করতে পারবো তার চেয়েও বেশি টাকা বাজেটে রাখা হয়েছে। ১৪ হাজার ২০০ কোটি টাকা রাখা হয়েছে। যদি প্রয়োজন হয়, অন্যখাত থেকেও টাকা আনা যাবে।’

অর্থসচিব বলেন, ‘স্বাস্থ্যখাতের ব্যয়ের একটা অংশ অব্যবহৃত থাকে। স্বাস্থ্যখাতে ব্যয়ের সঙ্গে যারা জড়িত- সেখানে একটা সমস্যা আছে।
যন্ত্রপাতিসহ অন্যান্য জিনিসের ডিমান্ড এবং সাপ্লাইয়ের মধ্যে বিস্তর ফারাক আছে। নতুন অর্থবছরে এ দুটো নিয়ে আমরা কাজ করবো। ইতোমধ্যে স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের সঙ্গে আমাদের কথা হয়েছে।’

অর্থসচিব আরও বলেন, ‘স্বাস্থ্যখাতের সম্পর্কিত যে প্রকল্পগুলো আছে। এ প্রকল্পে যারা পরিচালক হিসাবে আছেন তাদের প্রকল্প ব্যবস্থাপনা ও ক্রয়ের ব্যাপারে অভিজ্ঞতার ঘাটতি আছে। আগামী অর্থবছরে একটা ক্রাশ প্রোগ্রাম নিয়ে তাদের ট্রেনিংয়ের ব্যবস্থা করা হবে।

যেন প্রকল্প ব্যবস্থাপনায় বিশেষ করে কেনাকাটায় তারা ভালো করত পারেন। এই দুটো বিষয় আগামী অর্থবছরের শুরুতেই অ্যাড্রেস করবো। যাতে তাদের (স্বাস্থ্যখাতের) জন্য যে বরাদ্দ তারা যেন তা খরচ করতে পারেন।’