মাহমুদুল্লাহর বিদায়ে সুসংবাদ দিলো তামিম!

টেস্ট ক্রিকেটে উপেক্ষার জবাব এর চেয়ে ভালো আর কী হতে পারে? তাইতো জবাব দিয়ে বেশিক্ষণ সময় নেননি মাহমুদুল্লাহ রিয়াদ। আট নম্বরে নেমে দেড়শ রানের ইনিংস খেলে হারারে টেস্টের তৃতীয় দিনেই সতীর্থদের জানিয়ে দেন টেস্ট ছাড়ার কথা।

যদিও এখনো আনুষ্ঠানিক ঘোষণা আসেনি, হারারে টেস্ট শেষে অবসর নিয়ে কোনো কথা বলেননি। তবে টেস্টের পঞ্চম দিনে রিয়াদকে গার্ড অব অনার দিয়েছেন সতীর্থেরা, যেটি পরিষ্কার ইঙ্গিত দিয়ে যায় তার টেস্ট থেকে অবসরের।

মাঠের পর সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমেও রিয়াদকে বিদায়ী অভিবাদন জানিয়েছেন সতীর্থরা। টেস্ট দলের অধিনায়ক মুমিনুল হক, ওয়ানডে দলের অধিনায়ক তামিম ইকবাল, উইকেটকিপার মুশফিকুর রহীম, পেসার রুবেল হোসেন, অলরাউন্ডার মেহেদি হাসান মিরাজসহ অনেকে রিয়াদকে নিয়ে লিখেছেন ফেসবুকে।

লাল বলের ক্রিকেটে রিয়াদের বাংলাদেশ অধ্যায় শেষ হয়ে গেলেও সাদা বলের ক্রিকেটে তার সঙ্গে আরও সময় কাটানোর অপেক্ষায় থাকা তামিম লিখেছেন, ‘লাল বলের ক্রিকেটে আপনি (বাংলাদেশকে) যেভাবে সেবা দিয়ে গেছেন, সেটার জন্য আপনাকে অনেক ধন্যবাদ মাহমুদুল্লাহ রিয়াদ ভাই। সীমিত ওভার ক্রিকেটে আপনার সঙ্গে ড্রেসিংরুমে দারুণ কিছু সময় কাটানোর অপেক্ষায় আছি।’

তবে নতুন খবর হচ্ছে, হাঁটুর ইনজুরির কারণে জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে একমাত্র টেস্টে খেলতে পারেননি দেশ সেরা ওপেনার তামিম ইকবাল। তবে তামিমের ঘাটতি বুঝতে দেননি মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ, মেহেদী হাসান মিরাজ, তাসকিন আহমেদ, সাদমান ইসলাম অনিক ও নাজমুল হোসেন শান্তরা।

তাদের ব্যাটে-বলের পারফরম্যান্সে জিম্বাবুয়েকে হারারে টেস্টে ২২০ রানে পরাজিত করে টাইগাররা। চোটের কারণে টেস্টে না খেলতে পারলেও জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে তিন ম্যাচের ওয়ানডে সিরিজে খেলবেন তামিম।

বিষয়টি নিশ্চিত করে টাইগারদের টিম লিডার আহমেদ সাজ্জাদুল আলম ববি জিম্বাবুয়ে থেকে ফোনে দেশের একটি অনলাইন পোর্টালকে জানিয়েছেন, সে এখনও শতভাগ ফিট নয়। তারপরও আশা করা যাচ্ছে, তামিম ওয়ানডেতে খেলবে।

১৬ জুলাই প্রথম ওয়ানডে খেলবে বাংলাদেশ দল। ওয়ানডের স্পেশালিস্ট ক্রিকেটাররা হারারে গিয়ে পৌঁছেছেন। সোমবার সবাই প্র্যাকটিস করেছেন।