স্বেচ্ছায় একজন ছে’লের সাথে বি’ছানায় গিয়ে এখন নাট’ক করছে: নুর

ঢাকা বিশ্ববিদ্যা’লয়ের কে’ন্দ্রীয় ছাত্র সংসদের (ডাকসু) সাবেক ভিপি নুরু’ল হক নূরসহ ছ’য়জনের বি’রু’দ্ধে ঢাবির এক ছা’ত্রীর দা’য়ের করা অ’পহ’রণ, ধ”র্ষ’ণ, ধ”র্ষ”ণে সহযোগিতা ও ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে মা’ম’লার প্রতি’বেদন দাখিলের জন্য আগামী ১৩ অ’ক্টোবর দিন ধা’র্য করেছেন আ’দা’লত।

এদিকে ধ’র্ষণ মা’মলা দা’য়ের করা সেই ছা’ত্রী’কে ‘চ’রি’ত্রহীন’ বললেন ঢাকা বিশ্ববি’দ্যালয় কেন্দ্রীয় ছা’ত্র সংসদের (ডাকসু) সা’বেক ভিপি নুরুল হক নূর। এক ভি’ডিও বার্তায় তিনি এই কথা বলেন।

নুরুল হক নূর বলেন, ‘ভি’ক্টি’মের প’রিচয় তো ইতো’মধ্যে গণ’মাধ্যমে উঠে এসেছে। ঢাবির ইস’লামি স্টাডি’জ বিভা’গের চতুর্থ বর্ষের না কি ছা’ত্রী। ফাতেমা আ’ক্তার বিথি।

তার ভাই মিথ্যা বল’লেন। তার ভাই ব’লেছি’লো, নাজমুল হাসান সো’হাগ তাদের বা’সায় যাওয়া-আসা করতো। তাদের সাথে বি’য়ের ক’থাবা’র্তাও পা’কা’পো’ক্ত হয়েছিলো। ’

ডাক’সুর সাবেক ভিপি আরো বলেন, ‘নাজ’মুল সোহাগের সাথে যে একটা ছবি ফেসবুকে ভাই’রা’ল হয়েছে আ’পনারা দেখে’ছেন, ল’ঞ্চের কে’বিনে হা’সিখুশি’ভাবে। যে লঞ্চের কে’বিনে মে’য়েটি ধ’র্ষ’ণের অ’ভিযো’গটি এনে’ছিলো সেই ল’ঞ্চের কে’বিনে।

একেবারেই হা’স্যর’সা’ত্মক। ছি, আম’রা ধি’ক্কার জানাই। এতো নাট’ক যে করছে, যেই দু’শ্চরি’ত্রা’হীন। যে ধ’র্ষ’ণের নাট’ক কর’ছে। স্বে’চ্ছায় এ’কজন ছে’লের সাথে বিছা’নায় গিয়ে, লঞ্চে হা’সি’খুশিভা’বে ছিল তারা।’

গত ২০ সেপ্টে’ম্বর রাতে ধ”র্ষ’ণ ও ধ’র্ষ”ণে সহ’যো’গিতার অ’ভিযো’গ এনে লালবাগ থা’নায় মা’ম’লা করেন ওই ছা’ত্রী। এতে হা’সান আল মামুন’কে প্র’ধান আ’সামি এবং নুরুল হক নূরসহ ছ’য়জ’নকে আ’সা’মি করা হয়।

পর’দিন একই বা’দী কো’তোয়া’লি থা’নায় ডি’জিটাল নিরাপত্তা আইনে মা’ম’লা করেন। সোমবার (২১ সেপ্টেম্বর) রাত সা’ড়ে ৮টার দিকে রাজ’ধানীর শা’বাগ এলাকা থেকে সাবে’ক ভিপি নুরুল হক নূর’সহ ৭ জনকে গ্রে’ফতা’র করে পু’লিশ।